নতুন প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ দিয়েও কাজ হয়নি, শ্রীলঙ্কায় বিক্ষোভ চলছে

জাতীয়

বিক্ষোভের মুখে প্রধানমন্ত্রীর পদ ছেড়ে নৌঘাঁটিতে আত্মগোপন করেছেন মাহিন্দা রাজাপাকসে। গতকাল বৃহস্পতিবার প্রধানমন্ত্রী হিসেবে শপথ নিয়েছেন শ্রীলঙ্কান বর্ষীয়ান নেতা রনিল বিক্রমাসিংহে। তবে রনিলকে ঢাল বানিয়েও বিক্ষোভ নিয়ন্ত্রণে আনতে পারছে না প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া রাজাপাকসের প্রশাসন।

এখনও প্রেসিডেন্ট গোতাবায়ার পদত্যাগের দাবিতে রাজধানী কলম্বোসহ বিভিন্ন শহরে বিক্ষোভ অব্যাহত রয়েছে।
আন্দোলনকারীরা বলছেন, প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ নিয়ে তাদের কোনও মাথা ব্যথা নেই। প্রেসিডেন্ট গোতাবায়ার বাড়ির বাইরে অবস্থানরত বিক্ষোভকারী শিবকুমার বলেন, ‘জনগণ যখন ন্যায়বিচার পাবে তখন আমরা এই সংগ্রাম বন্ধ করব। তারা যাকেই প্রধানমন্ত্রী করুক না কেন, জনগণ স্বস্তি না পাওয়া পর্যন্ত এই সংগ্রাম বন্ধ করব না।’

যদিও প্রধানমন্ত্রী নিয়োগ দেওয়ার আগের দিনের ভাষণে প্রেসিডেন্ট গোতাবায়া বলেছে, তিনি পদত্যাগ করবে না। আর বিক্ষোভকারীরাও বলছে, তারা গোতাবায়ার পদত্যাগ না দেখে রাজপথ ছাড়ছেন না।

অর্থনৈতিক সঙ্কটের কারণে সৃষ্ট খাদ্য ও জ্বালানি ঘাটতি, জীবনরক্ষাকারী ওষুধ স্বল্পতা, মাত্রাহীন লোডশেডিং এসব কারণে অতিষ্ট হয়ে শ্রীলঙ্কার মানুষ এক মাসের বেশি সময় ধরে বিক্ষোভ অব্যাহত রেখেছে।

এ বিক্ষোভে এখন পর্যন্ত পাঁচ জনের মৃত্যু হয়েছে, আহত হয়েছে তিন শতাধিক মানুষ।

সূত্র : আল জাজিরা

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.