নজরদারির জন্য বাংলাদেশ সীমান্তে ক্যামেরা বসিয়েছে ভারত

জাতীয়

ত্রিপুরার সঙ্গে বাংলাদেশের সীমান্ত এলাকায় ৯৫টি স্মার্ট নজরদারি ক্যামেরা বসিয়েছে ভারত। ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীর (বিএসএফ) ত্রিপুরা ফ্রন্টিয়ারের মহাপরিদর্শক সুশান্ত কুমার নাথের বরাত দিয়ে ভারতীয় সংবাদমাধ্যম দ্য ইকোনোমিক টাইমস বুধবার এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।
সুশান্ত কুমার নাথ জানান, বাংলাদেশের সঙ্গে ত্রিপুরার ৮৫৬ কিলোমিটার আন্তর্জাতিক সীমান্ত বরাবর চোরাচালান, অপরাধ এবং অনুপ্রবেশের জন্য ঝুঁকিপূর্ণ ২৪টি এলাকায় এসব ক্যামেরা বসানো হয়েছে।

গণমাধ্যমের সঙ্গে আলাপকালে সুশান্ত কুমার নাথ জানান, সীমান্তে কাঁটাতারের বেড়া স্থাপনের পাশাপাশি প্রযুক্তি নজরদারির অংশ হিসেবে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে।

তিনি বলেন, ২০২১ সালে ওই এলাকার সীমান্ত বেড়ার আটটি ফাঁকা পুরোপুরি বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। অন্য সীমান্তগুলোতেও বেড়া নির্মাণের কাজ চলছে। চলতি বছরের মধ্যে বাংলাদেশের সঙ্গে ত্রিপুরার ৮৫৬ কিলোমিটার আন্তর্জাতিক সীমান্তের সব অংশের বেড়া নির্মাণের কাজ শেষ করার চেষ্টা চলছে।
তিনি আরও বলেন, কালভার্টের (নালা) মতো ছোট স্থানের ফাঁকাগুলো ‍পূরণ করে দেওয়া হয়েছে। রাজ্যের পশ্চিমাঞ্চলের দিকের কাজ শেষ। এ পর্যন্ত ৪৪টি নালা ও কালভার্ট লোহার গেট দিয়ে বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে বলেও জানান তিনি।
গত বছর ২৪ কোটি রুপি মূল্যের ৪৫ লাখের বেশি গাঁজা গাছ ধ্বংস করা হয়েছে জানিয়ে তিনি বলেন, ২০২১ সালে অবৈধভাবে সীমান্ত পার হওয়ার সময় আমরা ২২১ জনকে আটক করেছি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.